আওয়ামীলীগের মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী করোনার টিকা নিয়ে কি অভিনয় করলেন

56

বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হকের টিকা নেয়ার একটি ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

সেখানে তাকে টিকা নেয়ার অভিনয় করতে দেখার এই ভিডিওটি সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ার পর ব্যবহারকারীরা নানারকম মন্তব্য করতে শুরু করেছেন।

তবে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক বিবিসি বাংলাকে বলছেন, প্রথমে টিকা নেয়ার পর একজন সাংবাদিকের অনুরোধে ভিডিও করতে দেয়ার জন্য তিনি আবার টিকা নেয়ার অভিনয় করেছিলেন। কিন্তু এখন উদ্দেশ্যপ্রণোদিতভাবে এই ভিডিওটি ছড়ানো হচ্ছে।

ভিডিওতে যা দেখা যাচ্ছে

এক মিনিট ৩৪ সেকেন্ডের একটি ভিডিও সামাজিক মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়েছে।

সেখানে দেখা যায় যে, তিনি একটি টিকা নেয়ার কক্ষে গিয়ে বসেছেন, দুই জন সেবিকা তাকে টিকা দিচ্ছেন। কিন্তু টিকা দেয়ার মতো অভিনয় করা হলেও, তার শরীরে কোন সূঁচ ফোটানো হয়নি।

এই সময়ে কয়েকজনকে পাশ থেকে নির্দেশনা দিতেও শোনা যায়। একজন ব্যক্তি সেবিকাকে বলেন, ”আপা, সুইয়ের মাথাটা একটু খুলে নিন। একটু খুলে অভিনয় করেন, আমরা জাস্ট…আপনি ওই সিস্টেমে (টিকা দেয়ার মতো করে) করেন। …….তুলাটা দিয়ে একটু ডলা দেন।”

সেবিকা একটি সিরিঞ্জ মন্ত্রীর বাম হাতের বাহুর ওপরে ধরে রাখেন।

এই সময় কয়েকজন ব্যক্তিকে ক্যামেরা দিয়ে ছবি বা ভিডিও করতেও দেখা যায়।

এরপর সাংবাদিকদের কাছে মন্ত্রীকে বলতে শোনা যায়, ”মনেই হয়নি, টিকা নিলাম, বুঝতেই পারিনি, কখন পুশ করেছে। পরে বলল যে, পুশ করা শেষ হয়ে গেছে। আমি ঠিকমতো বুঝতেই পারিনি। কোনরকম খারাপ কিছু বা ব্যথা পাওয়া, এরকম কিছু হয়নি।”

এই ভিডিওটি কে করেছেন বা কার মাধ্যমে বা কীভাবে তা ছড়িয়েছে তা নিশ্চিত হওয়া যায়নি।

তবে বিবিসি বাংলাকে মন্ত্রী মি. হক নিশ্চিত করেছেন যে তার টিকা নেবার পর একজন সাংবাদিক ভিডিও তুলতে পারেননি একথা বলে ভিডিও ছবি নেবার জন্য তাকে আবার টিকা নেয়ার অভিনয় করতে বলেন।

তবে এই ভিডিওটি সেই ভিডিওটিই কিনা তা নিশ্চিতভাবে যাচাই করা যায়নি।

বাংলাদেশের সংবাদ মাধ্যমের খবর অনুযায়ী, ঢাকার সচিবালয় ক্লিনিকে মুক্তিযুদ্ধ বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আ. ক. ম. মোজাম্মেল হক টিকা নিয়েছেন ১৭ই ফেব্রুয়ারি। ওই মন্ত্রণালয়ের সচিবও একই সময় টিকা নিয়েছেন।